নিউজ

ভ্যাকসিন দেওয়ার নাম করে এবার এক যুবতীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠল পাটনায়

ভ্যাকসিন দেওয়ার নাম করে এবার এক যুবতীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠল পাটনায়

পৈশাচিক কাণ্ড পাটনায়,ভ্যাকসিন দেওয়ার নামে যুবতীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এই ঘটনাটি ঘটেছে। নির্যাতিতাকে ভ্যাকসিন দেওয়ার বিষয়ে আশ্বস্ত করে অন্য এক এলাকায় নিয়ে যায় অভিযুক্তরা। তখনও বিপদের আঁচ পায়নি নির্যাতিতা।পরে একটি ফাঁকা বাড়িতে ঢুকলেই সব পরিষ্কার হয়ে যায় তার সামনে।আক্রান্তের অভিযোগ, ওই বাড়িতে ঢুকতেই তার সঙ্গে অশালীন আচরণ করতে থাকে দু’জন। প্রথমে তার হাত ধরে টানতে থাকে অভিযুক্তরা।

কোনওক্রমে হাত ছাড়িয়ে পালানোর চেষ্টা করতেই হামলে পড়ে তারা। মাটিতে আছড়ে ফেলে বাঁধা হয় হাত, পা আক্রান্তের চিৎকার যাতে বাইরে না যায় তাই মুখে গুজে দেওয়া হয় রুমাল। এরপর একে একে চলে পাশবিক নির্যাতন। পরে নির্যাতিতাকে ফেলে দিয়ে পালিয়ে যায় অভিযুক্তরা।পরে কোনওমতে হাত-পা ছাড়িয়ে পালাতে সক্ষম হয় নির্যাতিতা। নির্যাতিতার পরিবার পুরো বিষয়টা জানতে পেরে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে।অভিযুক্তরা নির্যাতিতার পূর্ব পরিচিত হওয়ায় পুলিশ তাদের বাড়িতে হানা দিয়ে বুধবার সকালে দুই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে।করোনা ভ্যাকসিন পেতে গিয়ে এমন বিপদের মুখ পড়তে হবে, ভাবতেও পারেনি ওই যুবতি।

আরও পড়ুন :  সোনার দামে বড় চমক ! একটানা তিনদিন ধরে ভারতীয় বাজারে অব্যাহত সোনার দাম, হলমার্কের বাজার কত জেনে নিন

মালাসামি থানার পুলিশ দুই অভিযুক্ত রকি ও মন্টুকে গ্রেফতার করেছে। তাদের বিরুদ্ধে ৩৭৬ডি ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।আক্রান্তের বয়স ১৮ বছরের কম হলে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পকসো আইনে মামলা রুজু করা হবে।পুলিশ জানিয়েছেন অভিযুক্তদের বাড়ি ওই এলাকাতেই, তাই ফাঁকা বাড়ির সম্পর্কে আগে থেকেই ধারণা ছিল তাদের।ইতিমধ্যেই আক্রান্তের শারীরিক পরীক্ষা করা হয়েছে। যেখানে পরিষ্কার ধর্ষণের প্রমাণ মিলেছে।

Related Articles

Back to top button