OMG! করালবদন হিংস্র হাঙরকে খালি হাতে ধরলেন যুবক!সেই ভিডিও নিমেষে ভাইরাল

সোশ্যাল মিডিয়া এমন একটি মাধ্যম যেখানে যে কোনো মুহূর্তেই সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পরে। দূর দূরান্তের যে কোনো খবর এখন আমরা ঘরে জানতে পারি।

বর্তমান প্রজন্মের কাছে সোশ্যাল মিডিয়া একটা গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হয়ে উঠেছে। সোশ্যাল মিডিয়া এমন একটি মাধ্যম যেখানে যে কোনো মুহূর্তেই সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পরে। দূর দূরান্তের যে কোনো খবর এখন আমরা ঘরে জানতে পারি। শুধুমাত্র এই সোশ্যাল মিডিয়ার কারণেই এটি সম্ভব হচ্ছে।সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনো কিছুই ভাইরাল হতে বিশেষ সময় লাগে না।

অনেকেই এই সোশ্যাল মিডিয়াকে হাতিয়ার বানিয়েই নিজের প্রতিভাকে হাজার হাজার মানুষের সামনে তুলে ধরছেন।তার ফলও পাচ্ছেন হাতেনাতে। কেউ নিজের গান, কেউবা নাচ, কেউ আঁকা কিংবা আবৃত্তির ভিডিও শেয়ার করে থাকেন সোশ্যাল মিডিয়ার পাতায়। প্রত্যেকেই নিজের শিল্পীসত্তাকে প্রকাশ করতে আগ্রহী থাকেন এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে।

Advertisement

তবে আজকাল সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রায় প্রতিদিনই পশুপাখিদের নতুন নতুন ভিডিও আপলোড হতে থাকে। সবাই পশুপাখিদের এই ধরনের ভিডিও দেখতে অত্যন্ত পছন্দ করেন। ভালুক, বাঁদর, কুকুর, বিড়াল, হাতি, পাখির বিভিন্ন মুহূর্তের ছবি এবং ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়াতে তুমুল ভাইরাল হয়ে থাকে। এই ধরনের ভিডিও অত্যন্ত মজাদার হয় এবং অনেকের কাছেই এই ভিডিওতে আকর্ষণের হয়ে থাকে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Only In Mastic (@only_in_mastic)

তবে কিছু কিছু ভিডিও এমন থাকে যেগুলো আমাদেরকে একেবারে চমকে দেয়। সেরকমই একটি মাছের ভিডিও সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। যে ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে সেই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে এক যুবক ঝকঝকে সৈকতে খালি হাতে হাঙর ধরলেন। নিউ ইয়র্কের সৈকতের এই ছবি তথা ভিডিও ভাইরাল।

সেখানে দেখা যাচ্ছে নিউইয়র্কের স্মিথ পয়েন্ট সৈকতে এক যুবক অনায়াসে লেজ ধরে বশে এনেছেন করালদংষ্ট্রা এক হাঙরকে হিংস্র সামুদ্রিক জীবটি মাঝে মাঝে পালানোর চেষ্টা করল ঠিকই। কিন্তু শেষমেশ বশ মানতে বাধ্য হল। পরে জলের প্রাণীকে আবার সমুদ্রেই ফিরিয়ে দেন ওই যুবক।তার কীর্তিতে হতভম্ব নেটিজেনরা।

এক নেটিজেন লিখেছেন হাঙরটিকে ফের সমুদ্রে ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য যুবককে ধন্যবাদ। প্রসঙ্গত যে স্মিথ পয়েন্ট সৈকতে এই ঘটনা ঘটেছে, সেটি সার্ফিংপ্রেমী ও সমুদ্রঅভিযাত্রীদের কাছে খুবই পছন্দের। যে হাঙরটিকে ওই যুবক ধরেছেন, সেই প্রজাতির হাঙর পরিচিত Ragged tooth shark নামেও অনেক সময় একে স্যান্ড টাইগার-ও বলা হয়।

অন্যান্য প্রজাতির তুলনায় সাধারণত স্বভাবে শান্তশিষ্টই হয় হাঙরের এই প্রজাতি। এদের স্বভাবের জন্য অনেক সময়ে এদের ল্যাব্রাডর অব দ্য সি বলেও ডাকা হয়।দ্য ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন ফর কনজারভেশন অব নেচার এই প্রাণীটিকে অন্যতম বিলুপ্তপ্রায় প্রাণী বলে চিহ্নিত করেছে।

Advertisement

Related Articles