নিউজ

যেকোনও সময়ে হতে পারে হামলা, প্রাণের আশঙ্কা নিয়ে হাই কোর্টে মামলা শুভেন্দুর

নিউজ ডেস্কঃ জীবন সংশয় শুভেন্দু অধিকারী। ২১ বছরের দলের সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করে পদ্মশিবিরে যােগদানের পর থেকেই নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত বঙ্গ রাজনীতির অন্যতম দাপুটে নেতা। যে কোনও সময়ে প্রাণঘাতী হামলা চালানাে হতে পারে। জীবন সংশয়ের এই সম্ভাবনা থেকেই নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে চেয়ে কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ শুভেন্দু অধিকারী।

Attacks could happen at any time, Shuvendur filed a case in the High Court for fear of death

কেন্দ্রের তরফে জেড ক্যাটাগরির নিরাপত্তা পান শুভেন্দু অধিকারী।কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা থাকলেও তিনি যে রাস্তা দিয়ে বিভিন্ন জনসভা করতে যাচ্ছেন সেখানে সুরক্ষার দায়িত্ব রাজ্য পুলিশের হাতে। সেখানে রাজ্য পুলিশ সহায়তা করছেন না বলে দাবি করেছেন শুভেন্দু অধিকারী। অভিযােগ, তাঁর জন্য আয়ােজিত জনসভায় ইচ্ছে করে বিশৃঙ্খলা তৈরি করা হচ্ছে। অশান্তি ছড়ানোর এই চেষ্টায় কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না পুলিশ বলে দাবি শুভেন্দুর।রাজ্য পুলিশের নিরাপত্তায় গাফিলতি রয়েছে এমনই অভিযােগ তুলেছেন নেতা।সুরক্ষা নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করেই হাইকোর্টের মামলা করেছেন শুভেন্দু।

আরও পড়ুন :  উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নয়া কোভিড ব্লকের উদ্বোধনের পরিকাল্পনা

প্রাণ সংশয়ের আশঙ্কা এই প্রথম নয়।এর আগেও এই আশঙ্কা নিয়েই রাজ্যপালের কাছে গিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। ৩ জানুয়ারি নন্দীগ্রামে হামলা হয়। তারপর গত ৮ জানুয়ারি নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর সভায় উত্তেজনা ছড়িয়েছিল। হঠাৎই শুরু হয়ে যায় চেয়ার ছোঁড়াছুঁড়ি,শেষে ইটবৃষ্টির মধ্যে ভণ্ডুল হয়ে গিয়েছিল বিজেপির সভা। মাত্র মিনিট কয়েক বক্তব্য রেখেই ক্ষান্ত হন শুভেন্দু। একই চিত্র পুরুলিয়াতেও দেখা যায়,সেখানেও শুভেন্দুর সভা ঘিরে ধুন্ধুমার লাগে। যদিও এই সব ঘটনার নেপথ্যে তিনি তৃণমূল দলকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button