টেকনোলজি

পেট্রোলের খরচ বাঁচাতে স্কুটার কেনার প্ল্যান করছেন?তাহলে দেখে নিন সেরা 3 Electric Scooter এর লিস্ট, দাম 40000 টাকার মধ্যে

বিশ্ব জুড়ে পেট্রোল ডিজেলের আকাশছোঁয়া দামের ফলে মানুষ ইদানীং আরও বেশি করে Electric Scooter দিকে ঝুঁকছে।এরফলে EV মার্কেটে নিজেদের জায়গা করে নিতে আকর্ষণীয় ইলেকট্রিক স্কুটার ও বাইক নিয়ে আসছে।প্রায় প্রতিদিনই নতুন নতুন EV লঞ্চ হয়।কিন্তু এর মধ্যে বেশিরভাগ গাড়ির দামই অনেক বেশি হয়।ফলে মধ্যবিত্ত সাধারণ পরিবারের মানুষ ইচ্ছে থাকলেও Electric scooter নিতে পারেন না।

তবে দেশে বাজেট ইলেকট্রিক স্কুটারের সংখ্যা কম হলেও এর মধ্যেও বেশ কয়েকটি দুই চাকার ইলেকট্রিক গাড়ি রয়েছে যেগুলির দাম কম। আপনিও যদি বাজেট ইলেকট্রিক স্কুটার কেনার কথা ভেবে থাকেন, তাহলে এগুলি কিনতেই পারেন। 40,000 টাকার মধ্যে সেরা ইলেকট্রিক স্কুটারগুলি দেখে নিন।

1) Evolet Pony

ভারতীয় EV মার্কেটে দুটি ইলেকট্রিক স্কুটার লঞ্চ করেছে Evolet Pony নামক EV ম্যানুফ্যাকচারিং কোম্পানি।এই দুটি ইলেকট্রিক স্কুটারের নাম রেখেছে Pony EZ এবং Pony Classic। ইলেকট্রিক স্কুটার দুটি এন্ট্রি-লেভেল লাইট-ওয়েটেড স্কুটার।Pony EZ একবার চার্জে 80 কিমি. রেঞ্জ প্রোভাইড করে। অন্যদিকে Pony Classic স্কুটারটি একবার চার্জে দিতে পারে 90 থেকে 120 কিমি. রেঞ্জ।ফাস্ট চার্জিং সুবিধার সাথে আসে স্কুটার দুটি।Pony EZ সম্পুর্ণ চার্জ হতে 7 থেকে ৪ ঘন্টা সময় নেয়। Pony Classic সম্পূর্ণ চার্জ হয় মাত্র 3 থেকে 4 ঘন্টায়।দুটি ইলেকট্রিক স্কুটারই 250W থেকে 350W পাওয়ার জেনারেট করতে পারে।স্কুটারগুলি 25kmph স্পিডে চলতে পারে।Pony EZ ইলেকট্রিক স্কুটারটির দাম 39,541 টাকা এবং Pony Classic ই-স্কুটারটির দাম 49,592 টাকা।

2)Ampere Reo Elite

মিডিয়াম বাজেটের ভালো ইলেকট্রিক স্কুটারের মধ্যে Ampere Reo Elite হল অন্যতম সেরা একটি ইলেকট্রিক স্কুটার।আপনি যদি 40,000 টাকার থেকে কিছু এক্সট্রা খরচ করতে পারেন তাহলে এই স্কুটারটি একটি দুর্দান্ত চয়েজ হতে পারে আপনার জন্য।এই ই-স্কুটারটির সেরা ফিচার হল এর ব্যাটারি।দুর্দান্ত লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারির সাথে আসে Ampere Reo Elite স্কুটারটি। দুটি ভ্যারিয়েন্টের সাথে পাওয়া যায় Ampere Rec Elite স্কুটার।ই-স্কুটারটির সর্বোচ্চ স্পিড 25 kmph। স্কুটারটি একবার চার্জে 55 থেকে 60 কিমি রেঞ্জ দিতে পারে।এছাড়াও দুই চাকার ইলেকট্রিক গাড়িটি জেনারেট করে 250W পাওয়ার। Ampere Reo Elite স্কুটারটি 7 থেকে ৪ ঘন্টার মধ্যে সম্পূর্ণ চার্জ হয়।এই ভ্যারিয়েন্ট দুটির দাম 43,000 টাকা এবং 59,987 টাকা।

3)Bounce Infinity

স্টার্টআপ কোম্পানি Infinity সম্প্রতি তাদের নতুন ইলেকট্রিক স্কুটার লঞ্চ করেছে।এই নতুন ইলেকট্রিক স্কুটারটির নাম দেওয়া হয়েছে Bounce Infinity।ইলেকট্রিক স্কুটারটি দুটি ভ্যারিয়েন্টে কিনতে পারবেন গ্রাহকরা।ব্যাটারি সহ এবং ব্যাটারি ছাড়া।Bounce Infinity ইলেকট্রিক স্কুটার একবার চার্জে 85 কিলোমিটার রেঞ্জ প্রোভাইড করবে। Bounce Infinity দেশের প্রথম ইলেকট্রিক স্কুটার, যাতে সোয়্যাপেবল ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে।ব্যাটারি এবং চার্জার সহ Bounce Infinity ভারতীয় মার্কেটে সেল হচ্ছে 68,999 টাকায়।তবে গ্রাহকরা ব্যাটারি ছাড়া Bounce Infinity স্কুটারটি মাত্র 36,000 টাকায় পেয়ে যাবেন।

Related Articles

Back to top button