লাইফস্টাইল

নারকেল তেলে আছে নানা পুষ্টিগুণ, রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর পাশাপাশি রয়েছে আরও উপকার,

নারকেল তেলে আছে নানা পুষ্টিগুণ, রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর পাশাপাশি রয়েছে আরও উপকার,

আমরা ছোটবেলা থেকেই মা, ঠাকুমা ও দিদিমাদের কাছে শুনে এসেছি যে, চুলের জন্য নারকেল তেলের চেয়ে ভালো আর কিছুই হতে পারে না। নিয়মিত নারকেল তেল দেওয়া তাঁদের কালো, ঘন, সুন্দর চুলই নাকি ছিল তার প্রমাণ। কিন্তু আপনি কি জানেন চুলের পাশাপাশি নারকেল তেল রান্নার কাজের জন্যও সমানভাবে উপকারী?হ্যাঁ, চুলের মতো রান্নাতেও পুষ্টিগুনে ভরপুর নারকেল তেল।নারকেলের পুষ্টিগুণ অত্যন্ত বেশি।তাই জেনে নিন রান্নায় নারকেল তেল ব্যবহার করলে কী ধরনের উপকারিতা পাবেন।

১)রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়ঃ-

শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে নারকেল তেল বেশ উপকারী।কারণ এর অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল লিপিড, ল্যারিক অ্যাসিড, ক্যাপরিক অ্যাসিড এবং ক্যাপরাইলিক অ্যাসিড শরীরে প্রবেশ করার পর ইমিউনিটিকে শক্তিশালী করে তোলে। যা আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে বৃদ্ধি করে।প্রতিদিন অল্পমাত্রায় নারকেল তেল খেলে আপনার শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।

২)হজম ক্ষমতা বাড়ায়ঃ-

গবেষণায় দেখা গেছে, হজম ক্ষমতার বৃদ্ধিতে নারকেল তেলের কোনও বিকল্প হয় না।হজম সংক্রান্ত সমস্যা থাকে তাহলে নিয়মিত রান্নাবান্নায় নারকেল তেল ব্যবহার করে দেখতে পারেন। পেটের পীড়া এবং পাকস্থলীর গোলযোগ সারাতেও কাজে লাগে এই তেল। নারকেল তেল পরিপাকে এবং হজম শক্তি বাড়াতে সহায়ক।

৩)ওজন কমায়ঃ-

অতিরিক্ত ওজনের কারণে যদি চিন্তায় থাকেন, তাহলে নারকেল তেল খেতে ভুলবেন না। কারণ এই প্রাকৃতিক উপাদনটিতে থাকা উপকারী ফ্যাটি অ্যাসিড পেটে এবং শরীরে জমে থাকা অতিরিক্ত মেদকে ঝরিয়ে ফেলতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে। সেই সঙ্গে এই তেল শরীরের মেটাবলিক রেটকে বাড়িয়ে দেয় যা আপনার ওজন বৃদ্ধির আশঙ্কাও কমে যায়।

৪)রক্তে শর্করা নিয়ন্ত্রণঃ-

নারকেল তেলের অন্যতম স্বাস্থ্য সুবিধা হল এটা ‘ব্লাড সুগার’ বা রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে ভূমিকা রাখে। বিশেষত যাদের ডায়াবেটিস আছে এবং যাঁরা রক্তে শর্করার উচ্চমাত্রা সংক্রান্ত জটিলতায় ভুগছেন—তাঁদের জন্য প্রাত্যহিক খাবারদাবারে পরিমিত মাত্রার নারকেল তেল খুবই উপকারী।

৫)শরীরের সার্বিক কর্মক্ষমতা বৃদ্ধি পায়ঃ-

নারকেলে তেলের মধ্যে থাকা মিডিয়াম চেন ট্রাইগ্লিসারাইড এবং ফ্যাটি অ্যাসিড লিভারের কর্মক্ষমতা বাড়াতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে।

৬)দাঁতের স্বাস্থ্যের উন্নতিঃ-

দাঁতের সুরক্ষায় ক্যালকিউমিন নামক একটি উপাদান বিশেষ ভূমিকা পালন করে। এই উপাদানটি যাতে ঠিক মতো শরীর দ্বারা শোষিত হয়, সেদিকে খেয়াল রাখে নারকেল তেল। এই কারণে নারকেল তেল খাওয়া শুরু করলে দাঁতের কোনও ধরনের সমস্যা হওয়ার আশঙ্কা কমে যায়।

Related Articles

Back to top button