নিউজ

যুগান্তকারী আবিষ্কার মাত্র ৪৫ মিনিটে কোভিড টেস্ট রিপোর্ট! শীঘ্রই বাজারে আসছে “কোভির‍্যাপ”

যুগান্তকারী আবিষ্কার মাত্র ৪৫ মিনিটে কোভিড টেস্ট রিপোর্ট! শীঘ্রই বাজারে আসছে কোভির‍্যাপ

মাত্র ৪৫ মিনিটেই পাওয়া যাবে কোভিড টেস্টের ফলাফল। পজিটিভ না নেগেটিভ জানিয়ে দেবে “কোভির‍্যাপ”।আইআইটি খড়্গপুরের যুগান্তকারী আবিষ্কার বাজারে আসতে চলেছে শীঘ্রই।কোভিডের দ্বিতীয় ঢেউ দেশে আরও মারাত্নক ভাবে আছড়ে পড়েছে।দেশে প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ মানুষ করোনা পরীক্ষা করাচ্ছেন।এরাজ্যেও প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ করোনা সংক্রমিত হচ্ছেন।আরটি-পিসিআর বা র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টই বড় ভরসা।

কিন্তু র‍্যাপিড অ্যান্টিজেনে অনেক সময় নেগেটিভ রিপোর্ট এলেও, আরটি-পিসিআরে তা পজিটিভ হয়ে যাচ্ছে।আবার আরটি-পিসিআরের রিপোর্ট আসতে ১-২ দিন দেরি হয়ে যাচ্ছে।এই পরিস্থিতিতে মাত্র ৪৫ মিনিটে কোভিড পরীক্ষার ফলাফল জানা যাবে, আইআইটি খড়্গপুর এমন যন্ত্রই আবিষ্কার করল।এই কোভির‍্যাপের মাধ্যমে দ্রুত এবং কম খরচে করোনার রাইবো নিউক্লিক অ্যাসিড বা আরএনএ পরীক্ষার নিখুঁত রিপোর্ট পাওয়া যাবে। এই যন্ত্র বাজারজাত করার অনুমোদনও পাওয়া গেছে।

আরও পড়ুন :  " সমস্ত জেলায় আগামী ১৪ ডিসেম্বর আবার ধর্নায় বসতে চলেছেন" জানালো কৃষক নেতারা।

প্রথম পর্যায়ের করোনা সংক্রমণের পরই, আইআইটি খড়্গপুর গবেষণা চালিয়ে যাচ্ছিল দ্রুতগতিতে এবং কম খরচে করোনা পরীক্ষা করার বা আরএনএ পরীক্ষার মাধ্যমে রিপোর্ট পাওয়ার।প্রতিষ্ঠানের মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক সুমন চক্রবর্তীর নেতৃত্বে চলছিল গবেষণা।তাঁর দাবি বর্তমানে করোনা পরীক্ষার জন্য যে প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয় তা হয় ব্যায়বহুল এবংদীর্ঘ সময়সাপেক্ষ।আর উপযুক্ত পরিকাঠামো ও দক্ষ কর্মীর প্রয়োজন হয়।তাই কিভাবে সহজে ও স্বল্প খরচে নিখুঁত রিপোর্ট পাওয়া যায় তা নিয়ে গবেষণা চালানো হচ্ছিল।

নানা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর বাজারজাত করার ছাড়পত্র মিলল গত ২১ এপ্রিল।আইআইটি খড়্গপুরের তরফে দিনকয়েক আগেই আমেরিকার একটি সংস্থাকে বিপুল অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে এই প্রযুক্তি দেওয়া হয়েছে। তাঁরা এবার বাজারজাত করবে এই যন্ত্র।অন্যদিকে এই প্রযুক্তি দেওয়া হয়েছে রাজধানী দিল্লির একটি সংস্থাকেও। এ দেশের বাজারেও ২-৩ মাসের মধ্যে এসে যাবে “কোভির‍্যাপ”।এই যন্ত্রের মাধ্যমে মাত্র ৪৫ মিনিটে নিখুঁত ফলাফল পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছেন অধ্যাপক সুমন চক্রবর্তী।

Related Articles

Back to top button