চাকরির আপডেট

কেন্দ্রীয় সরকারের নতুন প্রকল্প, প্রশিক্ষণ দিয়ে বেকার যুবক যুবতীদের চাকরি দেবার উদ্দেশ্যে! আবেদন করবেন কিভাবে দেখুন

বিশাল বড় চাকরির সুযোগ!বেকার যুবক যুবতীদের সরাসরি ট্রেনিং করিয়ে চাকরি দেওয়া হবে। কেন্দ্র সরকারের তরফে প্রচুর পরিমাণে বেকার যুবক যুবতীদের কর্মসংস্থানের সুবিধা করা হচ্ছে।কেন্দ্র সরকার চাকরি প্রার্থীদের সম্পূর্ণ বিনামূল্যে ৩ থেকে ৬ মাসের ট্রেনিং করানো হয় এবং ট্রেনিং শেষে সরাসরি চাকরির ব্যবস্থা করে দেবে।চাকরি প্রার্থীদের সরাসরি অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। আবেদন করলে ট্রেনিং করার সুযোগ পাবেন নিজ জেলায়।

এই প্রকল্প কী? কারা এই প্রকল্পে আবেদন করতে পারবেন!আবেদন পদ্ধতি ইত্যাদি আরও প্রকল্প সংক্রান্ত তথ্য নিয়ে নীচে বিশদে আলোচনা করা হলো।

  • প্রকল্পের নামঃ-

এই প্রকল্পটি হল- দীনদয়াল উপাধ্যায় গ্রামীণ কৌশল্য যোজনা (DDU-GKY)।

  • প্রকল্পের উদ্দেশ্যঃ-

আর্থিক উন্নতির লক্ষ্যে এই প্রকল্প উদ্ভাবন করা হয়েছে।এই প্রকল্পের মাধ্যমে শিক্ষিত বেকার এবং পিছিয়ে থাকা বেকার যুবক যুবতীদের সম্পূর্ণ বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ দিয়ে বা কর্মদক্ষ করে তুলে তাদের চাকরির ব্যবস্থা করে দেওয়া।

  • এই প্রকল্পে কারা আবেদন করতে পারবে?

  1. আবেদনকারীকে ভারতীয় নাগরিক হতে হবে।
  2. ট্রেনিং প্রোগ্রামগুলোতে অংশগ্রহণের জন্য বয়স ১৮ থেকে ৩৫ বছরের মধ্যে হতে হবে।
  3. মহিলা ও প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের জন্য সর্বোচ্চ বয়সসীমা ৪৫ বছর করা হয়েছে।
  4. শিক্ষাগত যোগ্যতা অতি সামান্য অর্থাৎ অষ্টম শ্রেণী পাস বা মাধ্যমিক পাস বা উচ্চ শিক্ষিত হলেও আবেদন করতে পারবেন।
  • আবেদন করবেন কীভাবে?

(১) আপনার নিকটবর্তী DDU GKY ট্রেনিং সেন্টার খুঁজুন। এরজন্য https://kaushalpanjee.nic.in/ ddugky/ekaushal ওয়েবসাইটে গিয়ে আপনার State (রাজ্য), District (জেলা), সেক্টর সিলেক্ট করে Submit এ ক্লিক করুন। তাহলে আপনার নিকটবর্তী প্রশিক্ষণ কেন্দ্রর নাম, ঠিকানা, যোগাযোগ নম্বর ইত্যাদি দেওয়া থাকবে।

(২) সেন্টারের প্রদত্ত নম্বরে ফোন করে কিংবা সেন্টারে গিয়ে যোগাযোগ করে, আপনি যে ট্রেডে অ্যাডমিশন নিতে চান সেই বিষয়ে তাদের বিষয়ে তাদের অবগত করুন। যদি সিট ফাঁকা থাকে তাহলে আপনাকে অ্যাডমিশন দেওয়া হবে।

(৩) এছাড়াও https://kaushalpanjee.nic.in/ এই ওয়েবসাইটে গিয়ে Candidate Registration অপশনে ক্লিক করে যাবতীয় তথ্য ফিল আপ করে নিজেকে রেজিস্টার করুন। তাহলে প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত থাকা ব্যক্তিরা আপনার সঙ্গে যোগাযোগ করে নেবে।

  • আবেদন করতে কী কী লাগবে?

  • সচিত্র পরিচয়পত্র প্রমানের জন্য আধার কার্ড / ভোটার কার্ড/ সরকার প্রদত্ত কোনো ফটো আইডি কার্ড এগুলোর মধ্যে যে কোনো একটি।
  • বয়সের প্রমাণপত্র হিসেবে উপরের কার্ডগুলোতে জন্মতারিখ উল্লেখ না থাকলে বার্থ সার্টিফিকেট লাগবে। যদি আধার বা ভোটার কার্ডে আপনার Date of Birth (জন্মতারিখ) দেওয়া থাকে তাহলে জন্ম সার্টিফিকেট লাগবে না।
  • প্রকল্পে গ্রহণযোগ্যতা (Eligibility) এর প্রমানের জন্য-

* বিপিএল কার্ড (আপনার বা আপনার পরিবারের)।

*আপনার পরিবারের যেকোনো কারোর MGNREGA কার্ড ( অন্তত ১৫ দিনের কাজের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে)।

* আপনার পরিবারের RSBY কার্ড (রাষ্ট্রীয় স্বাস্থ্য বীমা যোজনা)।

* AAY (অন্নপূর্ণা অন্ন যোজনা) অথবা BPL PDS কার্ড।

* NRLM সেলফ হেল্প গ্রুপ আইডেন্টিফিকেশন অথবা আপনার পরিবারের যেকোনো সদস্যের জন্য প্রদত্ত সার্টিফিকেট।

  • প্রকল্প সংক্রান্ত উল্লেখযোগ্য তথ্যঃ-

(১) দেশের প্রায় সব জেলাতেই অন্তত একটি করে এই প্রকল্পের প্রশিক্ষণ কেন্দ্র রয়েছে।

(২) DDU-GKY যোজনায় প্রায় ৫৫০ টিরও বেশি ট্রেড রয়েছে এবং ৭০০ টিরও বেশি রকমের চাকরির সুযোগ রয়েছে।

(৩) ট্রেনিং শেষ হলে আপনাকে যে কোনো প্রাইভেট কোম্পানিতে নিয়োগ করা হবে এবং আপনার পারফরমেন্সের ওপর ভিত্তি করে আপনাকে ভালো স্যালারি দেওয়া হবে।

(৪) এখানে ট্রেনিং করতে কোন রকম টাকা দিতে হবে না সম্পূর্ণ বিনামূল্যেই এখানে ট্রেনিং করতে পারবেন।

Related Articles

Back to top button