নিউজ

বীরভূমের বােলপুরে রাস্তার দোকানে খুন্তি হাতে তারকারি রাঁধলেন মমতা ব্যানার্জি

বীরভূম, বােলপুরঃ পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রশাসনিক সভা ও পদযাত্রায় অংশ নিতে বীরভূমের বােলপুরে গিয়েছিলেন। কলকাতা ফেরার পথে হঠাৎ করেই আদিবাসী গ্রামে ঢুকে পড়েন তিনি। সেখানে আদিবাসী মহিলাদের সঙ্গে কথা বলতেও দেখা যায় তাকে। তাদের অভাব অভিযােগ মন দিয়ে শােনেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানেই এক চায়ের দোকানে দাঁড়ান তিনি।চায়ের দোকানীর কাছে মুখ্যমন্ত্রী জানতে চান কি রান্না হচ্ছে? তারপর নিজেই খুন্তি হাতে আলু বরবটির তরকারি রান্না করতে শুরু করেন। মুখ্যমন্ত্রীর এই হঠাৎ সফরে, ইতিমধ্যেই হইচই শুরু হয়েছে গ্রাম জুড়ে। মুখ্যমন্ত্রীকে কাছে পেয়ে উচ্ছ্বাসিত গ্রামবাসীরা।

আরও পড়ুন :  ২৫ টাকা কেজি দরে আলু বিক্রি বোলপুরে,‘সুফল বাংলা’য় স্বস্তি বোলপুরবাসীর'

Mamata Banerjee cooks with a pickaxe in a street shop in Belpur, Birbhum

বীরভূমের বল্লভপুর গ্রামে মুখ্যমন্ত্রী নিজে আদিবাসী গ্রামের পরিবারগুলাের সঙ্গে কথা বলেন। সরকারি প্রকল্পের সুবিধা পাচ্ছেন কিনা? কোথাও কোনও অসুবিধা হচ্ছে কিনা? জানতে চান গ্রামবাসীদের কাছে, পাশাপাশি বলেন ‘আমি তােমাদের ঘরের লােক’।

হঠাৎ মমতার আদিবাসী গ্রাম সফর নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন, বোলপুরের শান্তিনিকেতনে প্রচারে এসে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ যেভাবে আদিবাসী বাড়িতে খেয়ে ভােট রাজনীতি করছেন। তেমনই মুখ্যমন্ত্রীর এই সফরও রাজনীতিরই অংশ। বীরভূমের আদিবাসী ভােটকে টার্গেট করেছে তৃণমূল। তাদের সমর্থন পেতে আমি তোমাদেরই লােক এমন বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button