নিউজ

মমতার আশঙ্কা, কোভিড হয়েছে বলে নির্বাচন বন্ধ করতে চাইবে বিজেপি

মমতার আশঙ্কা, কোভিড হয়েছে বলে নির্বাচন বন্ধ করতে চাইবে বিজেপি

করােনার আবহে চলছে বাংলার নির্বাচন।ইতিমধ্যেই রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনের দুদফার ভােটের সমাপ্তি ঘটেছে, বাকি রয়েছে এখনও ছয় দফার ভােট।মঙ্গলবার রাজ্যে তৃতীয় দফার ভােট।এদিকে দেশে দিন দিন বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা এক লক্ষ ছাড়িয়েছে। এজন্য অনেকেই দেশের নির্বাচনকে দায়ী করেছেন। তাঁদের মতে এই নির্বাচনের জন্যই লাগামছাড়া করােনা পরিস্থিতি।এই পরিস্থিতিতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্তব্যে নতুন করে আশঙ্কা তৈরি হয়েছে রাজনৈতিক মহলে।সোমবার চুঁচুড়ায় জনসভা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী দাবি রাখেন ২ দফায় বাংলায় ভােট হয়ে যেত, কেন আট দফায় ভােট রাখা হয়েছে। কী চায় বিজেপি? ওদের চালাকি এই বাংলায় চলবে না। কোভিড হয়েছে বলে এখন নির্বাচন বন্ধ করতে চাইবে বিজেপি। কিন্তু এই চালাকি চলবে না।নির্বাচন যখন শুরু হয়েছে শেষ করতেই হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন :  বিহারের সপ্তম বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী হতে চলেছেন নীতীশ কুমার, জানুন সময়কাল

মঙ্গলবার তৃতীয় দফার ভােট, আর তার আগে বিজেপিকে উদ্দেশ্য করে আক্রমণের সুর আরও বাড়ালেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সােমবার হুগলির চুঁচুড়ায় সভা করতে গিয়ে তৃণমূল নেত্রী সরাসরি ক্ষমা চেয়েও নিলেন নিজের দলের ভুল-ভ্রান্তির জন্য। তিনি বলেন যদি কেউ আমাদের ভুল বুঝে থাকেন, তাহলে আমি ক্ষমা চাইছি। এখানে আমার দুই প্রার্থী, দুই তপনও আর কোনও অন্যায় করবে না। আমি ওদের হয়ে কথা দিচ্ছি। আমাদের দলে দু-একটা লােক ছিল,আসলে ওরা গদ্দার, তাই পালিয়ে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন :  বড়সড় ভূমিকম্পের গ্রাসে পড়তে পারে কলকাতা,আশঙ্কার বার্তা ভূতত্ত্ববিদদের

চুঁচুড়ার বিজেপি প্রার্থী তথা সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়কে আক্রমণ শানিয়ে তিনি বলেন, ‘এখান থেকে লােকসভায় বিজেপি প্রার্থীকে জিতিয়েছিলেন। কিন্তু জিতে গিয়ে তিনি ঘুরে বেড়াচ্ছেন। এখানকার প্রার্থী তাে লকেট নয়, সারদার গলার লকেট। মাথায় রাখবেন, বাংলার মেরুদণ্ড ভাঙার ক্ষমতা মােদী শাহের নেই।মােদি শাহ জুটিকে রীতিমতাে তুলোধনা করে বলেন, গুজরাতিরা বাংলা শাসন করবে না, আমরা বাঙালিরাই করব।তৃণমূল নেত্রীর কথায় বিজেপি একটা চোরেদের পার্টি। বাবুল সুপ্রিয়, লকেটের বিরুদ্ধে কোনও মামলা হয় না।বিজেপি যদি এতই ভাল দল হয়, তাহলে এখানকার স্থানীয় প্রার্থী খুঁজে পেল না কেন? বিজেপির তাে নিজেদের কোনও প্রার্থীই নেই।তৃণমূল নেত্রীর নিশানায় এদিন ছিল দলবদলের প্রসঙ্গও।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button