Advertisement
নিউজ

Partha Chatterjee Primary SSC Scam: এবার প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থের বাড়িতে মিলল টেটের একাধিক তথ্য ও নথি

কলকাতায় মন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ বান্ধবী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে ২১ কোটি ২২ লক্ষ টাকা পাওয়া গিয়েছে।

Partha Chatterjee Primary SSC Scam: শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী তথা শিল্পমন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় গ্রেফতার হয়েছেন।স্কুল সার্ভিস কমিশন (এসএসসি) ও প্রাথমিক টেট-এ নিয়োগ-দুর্নীতির (Primary SSC Scam) তিনি অন্যতম মূল চক্রী বলে রবিবার কলকাতা সিএমএম আদালতে দাবি করে ইডি।কলকাতায় মন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ বান্ধবী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে ২১ কোটি ২২ লক্ষ টাকা পাওয়া গিয়েছে।

Advertisement

সব ২০০০ এবং ৫০০ নোটের বান্ডিল। পাওয়া গেছে ৭৯ লাখ টাকার গয়না এবং ৫৪ লক্ষ মূল্যের বিদেশী মুদ্রা। ওই বাড়ি থেকে ২০টি মোবাইল ফোনও পাওয়া গিয়েছে।ইডি সূত্রের খবর ওই অর্থ স্কুলে বেআইনি নিয়োগে নেওয়া ঘুষের অংশ বলেই প্রাথমিকভাবে মনে করছে তারা।এমনকি ইডি আদালতে দাবি করেছে ‘প্রভাবশালী’ অর্পিতার বাড়িই স্কুলে বেআইনি নিয়োগের দুর্নীতির কেন্দ্র (Primary SSC Scam)।

Advertisement

কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটির অভিযোগ, অর্পিতার ফ্ল্যাটে তল্লাশি চালিয়ে শিক্ষা দফতরের নিয়োগের বিভিন্ন নথি উদ্ধার হয়েছে। তার মধ্যে এসএসসি, গ্রুপ-ডি ও নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণিতে শিক্ষক নিয়োগের নথি (Primary SSC Scam) রয়েছে।ইডি সূত্রে দাবি, বিভিন্ন নিয়োগের ক্ষেত্রে চাকরিপ্রার্থীদের পূর্ণ তালিকা এবং পরীক্ষা সংক্রান্ত নানা নথিও অর্পিতার হেফাজত থেকে পাওয়া গিয়েছে।এমনকি পার্থের সঙ্গে অর্পিতার একটি নির্দিষ্ট মোবাইল ফোনে প্রায় প্রতিদিন কথাবার্তা হত বলেও তদন্তে উঠে এসেছে।

আরও পড়ুন :  Free LPG Gas: বড় সুখবর! ফ্রি-তে তিন-তিনটে LPG সিলিন্ডার দেবে এই রাজ্যের সরকার
Advertisement

মন্ত্রীর বাড়ি থেকে অর্পিতার নামে বিভিন্ন সম্পত্তির দলিল ও সংস্থার নথি উদ্ধার হয়েছে বলেও তদন্ত রিপোর্টে অভিযোগ।জোরকদমে চলছে তদন্ত। পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বাড়ি থেকে বাজেয়াপ্ত প্রচুর নথি (Primary SSC Scam) নিয়োগপত্রের সুপারিশের কাগজ ও বদলির চিঠি, সবই পাওয়া গিয়েছে। এমনকি চাকরিপ্রার্থীদের অ্যাডমিট কার্ডও পাওয়া গিয়েছে।তাঁর বাড়িতে ২০১২-র টেটের সম্ভাব্য শিক্ষকদের তালিকাও পাওয়া গিয়েছে।

Advertisement

ইডি সূত্রে খবর মিলছে পার্থবাবুর বাড়িতে তল্লাশির পর ইডির সিজার লিস্ট অনুসারে সেখান থেকে মোট ১৭ রকমের নথি বাজেয়াপ্ত হয়েছে। তার মধ্যে রয়েছে প্রচুর নিয়োগের সুপারিশপত্রের কপি (Primary SSC Scam)।মন্ত্রীর বাড়ি থেকে যে জিনিস ও নথি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে, সেই তালিকায় কী কী রয়েছে-

১)প্রচুর নিয়োগপত্রের সুপারিশের কাগজপত্রের ফটোকপি।

২)বেশ কিছু শিক্ষকের বদলির সুপারিশের কাগজের জেরক্স।

৩)প্রচুর চাকরিপ্রার্থীর পরীক্ষার অ্যাডমিট কার্ড পাওয়া গিয়েছে।

৪)২০১২ সালের টেট পরীক্ষার ফলাফলের সংশোধিত কপি।

৫) শিক্ষা সংসদের সভাপতির দেওয়া একটি নোট।

৬) ২০১২ সালের টেট পরীক্ষায় সম্ভাব্য শিক্ষকদের তালিকা।

৭)তাঁদের সম্ভাব্য পোস্টিং সংক্রান্ত তালিকা।

৮)স্কুল সার্ভিস কমিশনের শীর্ষ কর্তাদের কিছু নথি মিলেছে।

৯)প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের বহিষ্কৃত সভাপতি মানিক ভট্টাচার্যের একটি নোট।

১০) একটি কম্পিউটার হার্ডডিস্ক।

১১) ২০১২ সালের সম্ভাব্য শিক্ষকদের তালিকা।

১২) SSC সংক্রান্ত বিভিন্ন নথি।

১৩)SSC-র শীর্ষ কর্তাদের পাঠানো বেশকিছু নথি।

১৪)অর্পিতার সম্পত্তি সংক্রান্ত তথ্য।

এখান প্রশ্ন উঠছে মন্ত্রীর বাড়িতে চাকরিপ্রার্থীদের অ্যাডমিট কার্ড কেন? তাহলে কি প্রভাব খাটিয়ে নিয়োগের যে অভিযোগ উঠছে, তার কোনও সারবত্তা রয়েছে। (Primary SSC Scam) এই সব প্রশ্নগুলিরই উত্তর খোঁজার চেষ্টা করছেন কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার আধিকারিকরা।এই তদন্ত শেষ পর্যন্ত কতদূর গড়ায় এখন সেটাই দেখার।

Related Articles

Back to top button