নিউজ

সাবমেরিন বিধ্বংসী টর্পেডোর পরীক্ষায় সফল করে আরও শক্তি বাড়লো ভারতীয় নৌসেনা,

নিউজ ডেস্কঃ আদতে শত্রুর জলযান ধ্বংস করার বন্দোবস্ত,যার পোষাকি নাম ‘সুপারসনিক মিসাইল অ্যাসিস্টেড রিলিজ অফ টর্পেডো(স্মার্ট)।’সোমবার ভারতীয় প্রতিরক্ষা গবেষণা ও উন্নয়ন সংস্থার (ডিআরডিও) তৈরী এই ‘স্মার্ট’এর সফল পরিক্ষা হলো।

The Indian Navy was strengthened by the test of the submarine destroyer torpedo.

জানা গিয়েছে সুপারসনিক মিসাইল অ্যাসিস্টেড রিলিজ টর্পেডো উড়িষ্যার হুইলার উপকূল থেকে একদম নির্ভূল নিশানায় পৌঁছে যায়।দুরপাল্লার এই ক্ষেপণাস্ত্র একদম সঠিক নিশানায় পৌঁছে গিয়েছে এবং লক্ষবস্তুতে আঘাত করেছে এমনটাই খবর প্রতিরক্ষা সূত্রে।

এছাড়াও প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন,লঞ্চ প‍্যাড থেকে ক্ষেপনাস্ত্রের উৎক্ষেপণ,গতিবেগ নিয়ন্ত্রণ, লক্ষবস্তুতে টার্গেট সমস্ত কিছু সঠিকভাবে করা হয়েছে। অ্যান্টি সাবমেরিন মিসাইলের প্রশংসা করে প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং টুইট করে বলেছেন,”ডুবোজাহাজ বিধ্বংসী মিসাইলের পরিক্ষায় সফল ডিআরডিও।অ্যান্টি সাবমেরিন ওয়ারফেয়ারে বড় হাতিয়ার হতে চলেছে এই ক্ষেপণাস্ত্র। ডিআরডিওকে অভিনন্দন জানাই।”

ওজনে হালকা,অনেকদুর অবধি নিশানাও করা যায়,দিনে রাতে আবহাওয়া যেমনি হোক এই ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ সম্ভব।এতে আছে ইলেক্ট্রো অপটিক্যাল সিস্টেম, শক্তিশালী রেডার।যে কোনরকম লক্ষবস্তুতে নিশানা করতে পারে এই ক্ষেপণাস্ত্র। নিক্ষেপের পর এটিকে থামানো মুশকিল শুধু তাই নয় শত্রুপক্ষ সাবমেরিন হামলা করলে এটি হবে নৌসেনাদের বড় অস্ত্র এই ক্ষেপণাস্ত্র। প্রতিরক্ষা সূত্রে খবর এটি পৃথিবীর সেরা টর্পেডো গুলির অন‍্যতম। গোপনে হানা দেওয়া সমস্ত সাবমেরিনকে নিমেষে ধ্বংস করে ফেলতে পারে এই টর্পেডো।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button