ভাইরাল

অবাক শখপূরণ! ১১ লক্ষ টাকা খরচ করে নিজেকে ‘কুকুর’ বানালেন যুবক, কিন্তু কী ভাবে?

মানুষ নিজের শখ মেটাতে কী-ই না করে! কেউ সারা শরীরে ট্যাটু করেন। আবার কেউ ঠোঁটের মুখের নানা রকম অপরাশেন করে নিজেকে বদলে ফেলেন। কেউ হয়ত সুন্দর হতে চান। আবার কেউ হয়ত সব থেকে বিচ্ছিরি দেখতে হতে চায়। মাঝে মধ্যেই এই ধরনের খবর শোনা যায়।কিন্তু এই সব কিছুকে ছাপিয়ে গিয়েছে জাপানের এক যুবকের শখ। শখের বশে এই যুবক নিজেকে কুকুরের রূপ দিলেন। অবিশ্বাস্য লাগলেও এই বিষয়টি সত্যি।ভাবছেন কী করে সম্ভব হল?

জাপানের এক যুবক টাকো নিজের শখ পূরণ করতে লক্ষ লক্ষ টাকা খরচ করে নিজেকে আস্ত একখানা কুকুরে পরিণত করে ফেলেছেন তিনি।মানুষের এই একঘেয়ে জীবন আর ভাললাগে না। সেই রোজ সকাল সকাল ঘুম থেকে ওঠো, সারাদিন কাজ করো, রাতে ঘুমাও নাহ, এসব করে করে ক্লান্ত হয়ে পড়েছিলেন জাপানি যুবক। তার চেয়ে রাস্তায় ঘুরে বেড়ানো ওই কুকুরগুলো কত সুন্দর। কত স্বাধীন, খোলামেলা ওদের জীবন।

আরও পড়ুন :  ঢাকের তালে ব্যাপক নাচ দাদা সৌরভ গাঙ্গুলীর, ভাইরাল সেই পুরানো ভিডিও

অনেকদিন ধরেই যুবক ভাবছিলেন, যদি কুকুর হতে পারতাম তাহলে কত ভাল হত। ভাবতে ভাবতে একদিন ভাবনাটাকে সত্যিও করে ফেলল সে।জাপানি যুবকের শখটা যতই আজগুবি, উদ্ভট হোক, তা পূরণ করে কিন্তু সকলকে অবাক করে দিয়েছেন তিনি। তবে মানুষের শরীরে নানা সার্জারি করে কুকুর বানানো সম্ভব নয়। তাই একটু অন্য পথে হাঁটলেন তিনি। নিজেকে কুকুর বানাতে টাকো দেশের এক নামকরা পোশাক সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করেন।সেখানেই কুকুরের মতো পোশাকের অর্ডার দেন।

আরও পড়ুন :  সূঁচ ফোটানোর আগেই ভয়ে তিনি দু’বার চেয়ার থেকে পড়ে গেলেন,চিৎকার করছেন এক ব্যক্তি! ভাইরাল ভিডিও

তার শর্ত ছিল এমন একখানা পোশাক তাঁকে বানিয়ে দিতে হবে যা পরলে কোনওভাবে বোঝা না যায় যে তিনি আসলে কুকুর নন, আসলে তিনি কুকুরবেশী মানুষ।তার কথামতো কাজও হয়েছে। টাকোকে হুবহু কুকুরের মতো দেখতে পোশাক বানিয়ে দেওয়া হয়েছে। এই পোশাকে খরচ হয়েছে ১১ লাখ টাকা। কুকুরের সেই বেশ পরেই এখন দিব্যি ঘুরে বেড়াচ্ছেন জাপানের যুবক।তিনি কুকুরের মতো জীবন যাপন করতে শুরু করেছেন।

মানুষের জীবনের প্রতি বিতৃষ্ণা থেকেই এমন কাণ্ড ঘটিয়েছেন টাকো। তাঁকে দেখে সত্যিই বোঝা যাচ্ছে না তিনি কুকুর না মানুষ।এবার থেকে ইচ্ছে হলেই এই পোশাক পরে কুকুর হতে পারবে টাকো।তাঁর এই নতুন শখের ছবি নেটমাধ্যমে শেয়ারও করেছেন তিনি।তার এই অবাক করা কাণ্ড দেখে চমকে উঠেছেন নেটিজেনরা।
যা নিয়ে বিপুল চৰ্চা চলছে। নেটিজেনরা বলছেন, সত্য সেলুকাস, কী বিচিত্র এই দেশ।

Related Articles

Back to top button