নিউজ

মর্মান্তিক মৃত্যু, হাই টেনশন তার এসে পরল চলন্ত স্কুটিতে, নিমেষে দগ্ধ শিক্ষিকা

নিউজ ডেস্কঃ ‘কার মৃত্যু যে কখন কিভাবে আসে তা আগেভাগে কেউ বলতে পারেনা’কোনো ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে অনেক সময় এরকম একটি কথা শুনতে পাই আমরা।কিন্তু এমন মর্মান্তিক মৃত্যু কেউ হয়তো আগেভাগে কল্পনায় ভাবতে পারেনা।

এদিনের ঘটনাস্থল রাজস্থানের বান্সবারা জেলার নোগামা অঞ্চলের।শিক্ষিকার মৃত্যু এমনভাবে ঘটলো যে তা কেউ কল্পনাও করতে পারেনি।ঘটনা শুনে হয়তো অনেকেরই হাড়হিম হয়ে যাবে।বছর ২৫ এর ঐ মহিলা নিজে কিছু বুঝে ওঠার আগেই জীবন্ত দগ্ধ হলেন।ঐ শিক্ষিকা রোজকার মতোই স্কুটার চালিয়ে স্কুলে যাচ্ছিলেন। রোজ এই রাস্তায় চলাচল করলেও এদিন ছিলো তার পক্ষে সম্পূর্ণ আলাদা রকম দিন। রোজকার চেনা রাস্তায় আজ তার জন্য মৃত্যুফাঁদ পেতে ছিলো।

আরও পড়ুন :  চিনকে হুঁশিয়ারি দোভালের, দেশের বিরুদ্ধে হুমকি এলেই পাল্টা লড়াই করব

সকাল থেকেই আবহাওয়া খারাপ ছিলো।তারমধ্যে সকাল ১০ টা নাগাদ স্কুটি নিয়ে স্কুলের পথে রওনা দিয়েছিলেন ঐ শিক্ষিকা।স্কুলের পথে রওনা দিতেই বৃষ্টি শুরু হয় আর সাথে বইতে থাকে ঝড়ো হাওয়া।আর এই হাওয়ার ফলেই হঠাৎ 11KV তার সেই শিক্ষিকার উপর এসে পরে।এরপর চক্ষের নিমেষে আগুন ধরে যায় স্কুটিতে এছাড়াও তড়িতাহত হয়ে পড়েন সেই শিক্ষিকা আর দাউদাউ করে জ্বলতে থাকেন তিনি। মর্মান্তিক এই মৃত্যু আশেপাশের লোকজন দেখতে পেলেও তাদের কিছুই করার ছিলোনা। এলাকাবাসী জানায় ঘটনার সাথে সাথেই বিদ‍্যুৎ বিভাগের কর্মীদের ফোন করলেও প্রায় ২০ মিনিট পর বিদ‍্যুৎ সংযোগ ব‍্যাহত করা হয় যারফলে আরো বড় কোনো বিপদ ঘটে যাবার সম্ভাবনা ছিলো।কারন তখন আশেপাশে অনেক মানুষজন ছিলো।পাশাপাশি তারা এটাও জানিয়েছে কয়েকদিন আগেই এরকম তার ছিড়ে পরে দুটি পথচলতি পশুও মরে গিয়েছে।

আরও পড়ুন :  পাকিস্তানে ছাগলকে গণধর্ষণ।ধর্ষনের পর মৃত্যু ছাগলের!অভিযুক্তরা এখনো অধরা।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button