Primary TET 2023 – পশ্চিমবঙ্গে টেট পরীক্ষায় নতুন নিয়ম! কি কি পরিবর্তন আনতে চলেছে কমিশন।

Advertisement

Primary TET 2023 – প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের জন্য টেট পরিক্ষা নেওয়া হয়। প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় এবার বড় সড় পরিবর্তন আনার চিন্তা ভাবনা শুরু করেছে স্কুল শিক্ষা দপ্তর। এবার টেট পরীক্ষার নম্বরের প্যাটার্নে বদল আনার পরিকল্পনা করা হয়েছে। এতদিন অবধি টেট পরীক্ষায় ইন্টারভিউ নেওয়া হত না। কেবলমাত্র প্রার্থীদের অ্যাকাডেমিক নম্বরের ভিত্তিতেই প্রার্থীদের মূল্যায়ন করা হত। এই অ্যাকাডেমিক স্কোরের মধ্যে প্রার্থীদের মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক, গ্র্যাজুয়েশন, পোস্ট গ্র্যাজুয়েশন এবং বি এডে প্রাপ্ত নম্বর গুলি ধরা হত। অ্যাকাডেমিক স্কোরের ভিত্তিতেই প্রার্থীদের নিয়োগ করা হত।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now
Advertisement

তবে এবার থেকে প্রার্থীদের ইন্টারভিউ নেওয়া হবে। লিখিত পরীক্ষা এবং ইন্টারভিউয়ের ভিত্তিতেই প্রার্থীদের মেরিট লিস্ট তৈরি করা হবে এবং পরবর্তীতে সেই লিস্ট অনুযায়ী শিক্ষক পদে নিয়োগ করা হবে। এছাড়াও নেগেটিভ মার্কিংয়ের প্রচলন করার কথা ভাবছে কমিশন। ইন্টারভিউ রেকডিং করে রাখা এখন বেশ কিছু পরিবর্তন আনার কথা ভাবনা চিন্তা করছে স্কুল সার্ভিস কমিশন। কি কি পরিবর্তন আনতে চলেছে কমিশন দেখুন-

Advertisement

আরও পড়ুন – LIC investment – মাত্র ৪৫ টাকা বিনিয়োগে মিলবে ২৫ লাখ রিটার্ন! এক্ষুণি ইনভেস্ট করুণ এই পলিসিতে।

১) টেট পরীক্ষায় (Primary TET) নেগেটিভ মার্ক এর প্রচলন।

টেট পরীক্ষায় নেগেটিভ মার্কিংয়ের বিষয়টি ফিরিয়ে আনতে চাইছে কমিশন। কমিশনের তরফে এই বিষয়ে বলা হয়েছে যোগ্য প্রার্থীদের শিক্ষক পদের জন্য নির্বাচন করার ক্ষেত্রে নেগেটিভ মার্কিং এর বিষয়টি থাকা দরকার। এই নিয়মের প্রচলনের ফলে যোগ্য প্রার্থীরা চাকরি পাওয়ার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবেন। কারণ কেবলমাত্র অনুমানের ভিত্তিতে উত্তর দেওয়ার প্রক্রিয়াটি সঠিক নয়।গত বছরের টেট পরীক্ষায় কোনো নেগেটিভ মার্কিং রাখা হয়নি। তবে আগামী টেট পরীক্ষাগুলিতে ভুল উত্তরের জন্য নম্বর কেটে নেওয়ার নিয়ম চালু করতে উদ্যোগী হয়েছে কমিশন।অর্থাৎ টেট পরীক্ষায় নেগেটিভ মার্ক এর প্রচলন হতে পারে।

২) টেট (Primary TET) পরীক্ষায় কর্বন কপির ব্যবহার।

কমিশনের তরফে জানানো হয়েছে টেট (Primary TET) পরীক্ষায় OMR Sheet ব্যবহৃত হবে। অর্থাৎ পরীক্ষায় কার্বন কপি ব্যবহার করা যাবে। পরীক্ষার্থীরা চাইলে কার্বন কপির ডুপ্লিকেট উত্তর পত্রের কপিটি বাড়ি নিয়ে যেতে পারবেন।

৩) অ্যাকাডেমিক স্কোর উঠে যাচ্ছে।

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের (Primary TET) ক্ষেত্রে প্রার্থীদের অ্যাকাডেমিক নম্বরের ভিত্তিতেই প্রার্থীদের মূল্যায়ন করা হয়েছে এতদিন। এই অ্যাকাডেমিক স্কোরের মধ্যে প্রার্থীদের মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক, গ্র্যাজুয়েশন, পোস্ট গ্র্যাজুয়েশন এবং বি এডে প্রাপ্ত নম্বর গুলি ধরা হত। তবে এবার থেকে অ্যাকাডেমিক নম্বরের বিষয়টি তুলে নিতে চাইছে কমিশন। অ্যাকাডেমিক নম্বরের বদলে প্রার্থীদের ১০ নম্বরের ইন্টারভিউ নেওয়া হবে। অর্থাৎ শিক্ষাগত যোগ্যতায় অ্যাকাডেমিক স্কোরের গুরুত্ব কমতে চলেছে।

৪) ইন্টারভিউ এর প্রচলন শুরু হচ্ছে।

এবার থেকে টেট উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের ১০ নম্বরের একটি ইন্টারভিউ দিতে হবে। প্রথমে লিখিত পরীক্ষা এবং পরে ইন্টারভিউয়ের ভিত্তিতেই প্রার্থীদের মেরিট লিস্ট তৈরি করা হবে। পরবর্তীতে সেই লিস্ট অনুযায়ীই কাউন্সেলিং প্রক্রিয়া শুরু হবে।

নতুন নিয়মগুলি চালু হলে কি কি সুবিধা হবে Primary TET -এ?

  • ১) নেগেটিভ মার্কিং এর বিষয়টি প্রচলন হলে যোগ্য প্রার্থীরা চাকরি পাওয়ার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবেন।
  • ২) পরীক্ষায় কার্বন কপির ব্যবহার হলে পরীক্ষার্থীরা সেই কার্বন কপির ডুপ্লিকেট উত্তর পত্রের কপিটি বাড়ি নিয়ে উত্তরগুলি সঠিক হয়েছে কিনা মিলিয়ে দেখতে পারবেন।
  • ৩) আর অ্যাকাডেমিক স্কোর এর বিষয়টি তুলে দেওয়া হলে যারা মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিকে কম নম্বর পেয়েছে তাদের সুবিধা হবে।

টেট পরীক্ষার (Primary TET) নিয়মে এই বদল সংক্রান্ত প্রস্তাবগুলি এসএসসির তরফে শিক্ষা দপ্তরে পাঠানো হয়েছে। যদিও এখনও পর্যন্ত শিক্ষা দফতরের চূড়ান্ত অনুমোদন মেলেনি এই বিষয়ে। শিক্ষা দফতরের অনুমোদন পেলেই প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় এই নতুন নিয়মগুলি চালু হয়ে যাবে।

আরও পড়ুন – Summer Vacation – গরমের ছুটি নিয়ে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা, কবে খুলবে স্কুল? জানুন বিস্তারিত।

Advertisement
JoinJoin