TET – তবে কি রেহায় পাবে ৩২ হাজার শিক্ষক ? সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ নতুন পথে

Advertisement

শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির (TET scam) মামলা বহুদিন ধরেই হাইকোর্টে চলছে। এই মামলা দায়িত্বে রয়েছেন কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের বেঞ্চ। কিন্তু এবার এই মামলায় (TET Case) বাতিল হল বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় এর সিদ্ধান্ত। ৩২ হাজার শিক্ষকের চাকরি বাতিলের নির্দেশকে খারিজ করা হলো। সুপ্রিমকোর্টের তরফে অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের এই নির্দেশকে খারিজ করা হলো হাইকোর্টের তরফে জানানো হয়েছে। এই মামলায় আবারও নতুন করে শুনানি দিতে হবে হাইকোর্টকে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

শুক্রবার এই নতুন রায় প্রদান করেছে সুপ্রিম কোর্ট এর সঙ্গে সঙ্গে সুপ্রিমকোর্ট আরো জানিয়েছে, তবে এই মামলার নতুন রায় প্রদান হাইকোর্টের তরফেই হবে। এই মামলা সুপ্রিম কোর্টের বিচারাধীন নয়। মামলাকারীদের আইনজীবী হিসাবে এই মামলায় রয়েছেন তরুণজ্যোতি তিওয়ারী ,কল্যাণ গঙ্গোপাধ্যায় সহ আরো অনেকে।

আরও পড়ুন – Ration Aadhaar link – ফের বাড়ল রেশন আধার লিঙ্ক সময়সীমা, দেখুন শেষ তারিখ

Advertisement

এর আগে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি (TET) মামলায় শিক্ষকদের আবার নতুন করে ইন্টারভিউ নেয়ার কথা বলা হয় এবং সেই নিয়ম মত পর্ষদ শিক্ষকদের আবার নতুন করে ইন্টারভিউ নেয়। ইন্টারভিউতে স্বচ্ছতা রাখার জন্য পুরো ইন্টারভিউ টি কে ভিডিও আকারে রেখে দেওয়া হয়। এবং তার সঙ্গে সঙ্গে ইন্টারভিউ প্রাপ্ত নাম্বার সরাসরি পর্ষদের ওয়েবসাইটে আপলোড করার ব্যবস্থা রাখা হয়। এছাড়া এই ইন্টারভিউ এর সময় প্রার্থীদের হাতে-কলমে ক্লাস নিয়ে দেখানোর জন্য ইন্টারভিউ (TET interview) কক্ষের মধ্যে বোর্ডের ব্যবস্থা রাখা হয়।

Advertisement

আসলে বিচার প্রতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের ৩২ হাজার শিক্ষকের চাকরি বাতিলের রায় কে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেন একদল চাকরি প্রার্থীরা। এবং সেই মামলার রায় সুপ্রিমকোর্ট এই নতুন রায় প্রদান করেছেন। এবারে এই মামলার রায় আবারও হাইকোর্টের হাতে এসেই পড়েছে তবে এবারে হাইকোর্টে এই মামলা সামলাবেন অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের ডিভিসান বেঞ্চ না অন্য কোন নতুন ডিসিশন বেঞ্চ এবং তারা পুরোপুরি নতুন করে এই মামলা চালাবেন।

কিন্তু যাই হোক এই এসএসসি (SSC Scam) এবং শিক্ষক নিয়োগ (TET scam) দুর্নীতি মামলায় দিন দিন নতুন মোর নিতেই থাকছে। কোর্টে পেষ হচ্ছে রোজ নতুন নতুন দুর্নীতি। বর্তমানে প্রচুর প্রাথমিক স্কুল শিক্ষক গ্রুপ সি ডি কর্মীরা তাদের চাকরি হারাচ্ছেন। এই মামলার রায় শেষ অব্দি হতে চলেছে সেই দিকে তাকিয়ে রয়েছে চাকরিপ্রার্থী চাকরিহারা পরীক্ষার্থীসহ সমস্ত সাধারণ মানুষ। তবে এই মামলা থেকে বিজাপুর অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় কে সরিয়ে দেওয়াকে এক নতুন দুর্নীতি বলেই মনে করছেন সাধারণ মানুষ। অনেকেরই দাবি এই মামলা থেকে অভিযোগ গঙ্গোপাধ্যায় সরিয়ে দেওয়ার কারণ নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় সমস্ত ঢাকার চেষ্টা।

আরও পড়ুন – School Holiday – স্কুল গুলিতে মিলবে ৩০ দিন টানা ছুটি, দেখুন লিস্ট।

Advertisement
JoinJoin