নিউজ

Voter Card New Rules: ভুয়ো ভোটিং রুখতে এবার কেন্দ্রের নয়া বিজ্ঞপ্তি ভোটার লিষ্ট নিয়ে, ১ অগাষ্ট থেকে নতুন বিধি আসছে নয়া ‘ফর্ম’!

Voter Card New Rules: প্যান কার্ড এর সঙ্গে আধার কার্ড (Aadhaar Card) সংযুক্ত করা হয়েছে আগেই। এবার ভোটার কার্ডের সঙ্গে আধার কার্ড সংযুক্ত করা হবে। আধার কার্ডের সঙ্গে ভোটার কার্ড লিংক করার প্রস্তাব গত বছরই দেওয়া হয়েছিল। এবার সেই প্রক্রিয়া শুরু হবে।জাল ভোটার কার্ড চিহ্ণিত করতে ভোটার আইডির সঙ্গে জুড়তে হবে আধার কার্ড। একেবারে সরকারি বিজ্ঞপ্তি জারি করে এই ঘোষণা করেছে কেন্দ্র।

কেন্দ্রের ধারণা এই সিদ্ধান্তের ফলে একজন ব্যক্তির একটি মাত্র ভোটার আইডি কার্ড থাকবে। যারা একাধিক ভোটার আইডি কার্ড রেখেছেন, তাদের সহজেই চিহ্নিত করে জাল কার্ড বাতিল করা যাবে।মুলত ভোটার তালিকাকে স্বচ্ছ করতে, ভোট প্রক্রিয়াকে শক্তিশালী করতে, নির্বাচন কমিশনকে আরও ক্ষমতা দিতে এবং ভুয়ো ভোটার দূর করতে এই পদক্ষেপ বলে জানা গিয়েছে।

সম্প্রতি এই নিয়ে একটি ট্যুইট করেছেন আইনমন্ত্রী। সেখানে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেছেন, এই সিদ্ধান্তের ফলে প্রতিটি ভোটারের ক্ষমতা বাড়বে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উদ্যোগে এই নির্বাচনী সংস্কারের কাজ একটি ঐতিহাসিক পদক্ষেপ। নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে পরামর্শ করে নির্বাচনী আইনের অধীনে চারটি সংস্কারের নির্দেশ জারি করেছে সরকার।

আরও পড়ুন :  এবার রাতের আকাশে দেখা মিলবে ব্লু মুনের, জানুন কবে

ভুয়ো পরিচয়পত্র দিয়ে ভোটিং বুথে দুর্নীতির ঘটনা দেশে বহু কাল থেকে হয়ে আসছে ( Voter Card New Rules )। এবার সেই ভুয়ো ভোটিং রুখতে আধার কার্ডের তথ্যাবলীর সঙ্গে ভোটার লিস্টকে সংযুক্ত করতে পদক্ষেপ নিল কেন্দ্র। সম্প্রতি অ্যামেন্ড করা হয়েছে ‘রেজিস্ট্রেশন অফ ইলেক্টরস রুলস’। এই তথ্যাবলী সংযুক্ত করতে নতুন একটি ফর্ম সামনে আনা হয়েছে।২০২৩ সালের এপ্রিল ১ তারিখের আগে এই কর্ম প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে চাইছে কেন্দ্ৰ (Voter Card New Rules)।

গত বছর ডিসেম্বরে ইলেকশন লজ (অ্যামেন্ডমেন্ট) অ্যাক্ট ২০২১ পাশ হয় সংসদে। তার নিরিখেই সদ্য শুক্রবার কেন্দ্রীয় আইন মন্ত্রক ঘোষণা করেছে এই আইন সংক্রান্ত সংশোধনীগুলি। এবার ১ অগাস্ট থেকে লাগু হচ্ছে ‘২০২২ রেজিষ্ট্রেশন অফ ইলেকটর্স (অ্যামেন্ডমেন্ড) রুলস’। এই আইন সংক্রান্ত নোটিসে বলা হয়েছে, যাঁদের ভোটার লিস্টে নাম রয়েছে তাঁরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে অবশ্যই দেখা করে বিষয়টি সম্পর্কে অবগত করতে হবে।

কেন্দ্র ২০২৩ সালের এপ্রিল ১ তারিখের আগে এই কর্ম প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে চাইছে (Voter Card New Rules ) । এই সংক্রান্ত যে বিল সংসদে পাশ হয়েছে, সেখানে বলা হয়েছে, ইলেকটোরাল রোলে নাম অন্তর্ভুক্তির ক্ষেত্রে কোনও আবেদন খারিজ হবে না, কেউ আধার সংক্রান্ত তথ্য না দিতে পারলেও ইলেক্টোরাল রোল থেকে নাম বাদ না যাওয়ার কথা বলা হয়েছে।

(Voter Card New Rules) এই তথ্যাবলী জানাতে ‘সিক্সবি’ হিসাবে একটি নতুন ফর্ম আসতে চলেছে।যাঁদের নাম ভোটার কার্ডে রয়েছে তাঁদের এই ফর্মে যাবতীয় তথ্যাবলী জানাতে হবে। যাঁদের আধার নেই, তাঁরাও ফর্মে নির্দিষ্ট অপশনের মাধ্যমে তা জানাতে পারবেন। সেক্ষেত্রে ওই ফর্মে অন্য পরিচয়পত্র সংক্রান্ত তথ্য দিতে হবে।

এতদিন পর্যন্ত জানুয়ারির ১ তারিখের আগে যাঁদের বয়স ১৮ বছর হত তাঁরাই প্রাপ্ত বয়স্ক হিসাবে ভোটার কার্ডের জন্য আবেদন করতে পারতেন। তবে এবার থেকে নিয়মে এসেছে সামান্য বদল। এবার থেকে ১ জানুয়ারি, ১ এপ্রিল, ১ জুলাই, ১ অক্টোবরের আগে যদি কেউ ১৮ বছর বয়সে পদার্পণ করেন, তাহলে তিনি ভোটার কার্ডের জন্য অনুমোদিত করতে পারবেন নিজের নাম।

Related Articles

Back to top button