Higher Secondary syllabus : উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় সিলেবাসে পরিবর্তন! গঠন করা হয়েছে ৪৭ টি সাব কমিটি।

Advertisement

Higher secondary Syllabus : উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় ব্যাপক বদল আনতে চলেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়! বারবার সিলেবাস নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। প্রায় ১১ বছর পর বদলাতে চলেছে উচ্চমাধ্যমিকের সিলেবাস। উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ এই বিষয়ে উচ্চপর্যায়ের একটি বৈঠক করে। খবর সূত্রে, ৪৭ টি বিষয়ের সিলেবাসে বদল ঘটতে চলেছে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

আর সেই বৈঠকেই এক একটির বিষয়ের জন্যে আলাদা সাব কমিটি গঠন করে দেওয়া হয়েছে। এই কমিটিই সিলেবাস বদল থেকে শুরু করে সমস্ত কিছু দেখবে। আর এই প্রক্রিয়া যাতে দ্রুত করা যায় সেটাই চেষ্টা করছে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। আর এজন্যে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত ডেডলাইন বেঁধে দেওয়া হয়েছে।

Advertisement

অন্যদিকে পরীক্ষা পদ্ধতিতেও বদল আসছে। সেমেস্টার সিস্টেম চালু হচ্ছে। উচ্চমাধ্যমিকের পরীক্ষা হবে একাদশ এবং ক্লাস ১২ নিয়ে। এজন্যে চারটে সেমিস্টার হবে বলে জানা গিয়েছে। যার মধ্যে ক্লাস ১১ এর জন্যে হবে দুটি সেমেস্টার অন্যদিকে ক্লাস ১২ এর জন্যে দুটি সেমেস্টার। ওএমআর শিট থেকে পরীক্ষায় মাল্টিপল চয়েসের প্রশ্নের জোর দেওয়া হচ্ছে।

Advertisement

তবে চতুর্থ সেমেস্টারে সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের পাশাপাশি বড় প্রশ্নের উত্তরও লিখতে হবে পরীক্ষার্থীদের। OMR শিটে থাকবে MCQ। এছাড়াও বেশ কিছু বদল থাকছে। তবে নয়া এই পরীক্ষা পদ্ধতি চালু হতে বেশ কিছু বছর সময় লাগবে। আর তা ২০২৬ সালের আগে নয়। সেক্ষেত্রে পরীক্ষার্থীরা ২০২৬ সালের মার্চ মাসে প্রথম সেমিস্টার দেবেন। অন্যদিকে সংসদ পাঠ্যবইতে বড়সড় বদল আনছে।

সময় উপযোগী পড়াশোনার প্রয়োজন আছে, মনে করছে রাজ্য শিক্ষা দফতর। আর তাই পাঠ্যবইতে বড়সড় বদলের প্রয়োজন আছে বলে মনে করা হচ্ছে। আর তাই ভ্যালু অ্যাডেড ট্যাক্সের মতো পুরানো জিনিস বাদ দিয়ে যুক্ত করা হচ্ছে জিএসটি। আধুনিক কম্পিউটার ল্যাঙ্গুয়েজের মতো পড়াশোনা যুক্ত হচ্ছে কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশনে। জানা গিয়েছে, সিলেবাস সংক্রান্ত সংশোধন জমা পড়বে বিকাশ ভবনে।

এই ৪৭ টি বিষয়ের উপর পরিবর্তন ৩১ জানুয়ারির মধ্যে জমা পরবে, আর সেখানে অনুমোদন মিলবে। তবে অনুমোদনের আগে একাধিকবার পর্যালোচনা এবং রিভিউ করা হবে বলে জানিয়েছেন উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের সভাপতি চিরঞ্জীব ভট্টাচার্য। শিক্ষা ক্ষেত্রে বড়সড় পরিবর্তন আগামীদিনে পরীক্ষার্থীদের কাজে আসবে বলেই মনে করা হচ্ছে। বিশেষ করে অন্যান্য বোর্ডের ছেলে-মেয়েদের থেকে বাংলা বোর্ডের পড়ুয়ারা প্রতিযোগিতাৎ পিছিয়ে পড়ছে। আর তাই সিলেবাস এবং পরীক্ষা বদলের দাবি বারবার উঠছিল।

Advertisement
JoinJoin