Madhyamik HS timings: ফের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার সময় বদল! জানিয়েছে পর্ষদ

Advertisement

Madhyamik HS timings: মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষার সময় বদল। মাধ্যমিক পরীক্ষার সময় 2 ঘণ্টা এগোল মধ্য শিক্ষা পর্ষদ। অন্যদিকে উচ্চ মাধ্য়মিকের সময় এগিয়েছে 2 ঘণ্টা 15 মিনিট। বৃহস্পতিবার নির্দেশিকা জারি করে পরীক্ষা শুরুর নতুন নির্ঘন্ট প্রকাশ করে পর্ষদ ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। উল্লেখ্য, এর আগে মাধ্যমিক পরীক্ষা সকাল 11.45 মিনিট নাগাদ শুরু হবে বলে জানানো হয়েছিল। নতুন নির্দেশিকা অনুযায়ী, মাধ্যমিক শুরু হবে 9.45 মিনিটে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

নতুন মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক (Madhyamik HS timings) পরীক্ষার সময়

অন্যদিকে বেলা 12টায় উচ্চ মাধ্যমিক শুরু হওয়ার কথা ছিল। যা এগিয়ে 9.45 মিনিটে শুরু হবে বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এদিন নবান্নে পর্ষদ ও সংসদের পদস্থ কর্তাদের সঙ্গে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক করেন রাজ্য প্রশাসনের আধিকারিকরা। এর পরই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে খবর সূত্রের।

Advertisement

আরও খবর – কেন্দ্রের এই প্রকল্পে মিলবে মাসে ৩০০০ টাকা

Advertisement

মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকের (Madhyamik HS timings) সময় পরিবর্তন নিয়ে আপত্তি জানিয়েছে শিক্ষা অনুরাগী মঞ্চ। এই সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক কিংকর অধিকারীর কথায়, ‘পরীক্ষার সময় এগিয়ে আনলে পড়ুয়াদের অসুবিধা হবে। শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি নিতে সমস্যা হবে তাদের।’ পাশাপাশি সময় বদলের কারণ জানতে চেয়েছে এই সংগঠন।

আগামী মাসে শুরু হচ্ছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। 2 ফেব্রুয়ারি অর্থাৎ শুক্রবার প্রথম পরীক্ষা দেবে মাধ্যমিকের (Madhyamik Exam) পড়ুয়ারা। এর পর 10 দিন ধরে চলবে এই পরীক্ষা। চলতি বছরের 12 ফেব্রুয়ারি শেষ হবে মাধ্যমিক।
অন্যদিকে 16 ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হবে উচ্চ মাধ্যমিক (HS Exam) পরীক্ষা। যা শেষ হবে 29 ফেব্রুয়ারি। দু’টি পরীক্ষার ক্ষেত্রে রুটিনের কোনও বদল করেনি পর্ষদ ও সংসদ।

আরও খবর – ব্যাঙ্কের টাকা ফাঁকা হতে পারে চেকবুক-এর কারনে! মাথায় রাখুন এই ৭ নিয়ম

উল্লেখ্য, আগামী সোমবার অর্থাৎ 22 জানুয়ারি মাধ্যমিকের অ্যাডমিট কার্ড (Madhyamik Admit Card) বিলি করা হবে বলে জানিয়েছে পর্ষদ। সরকারি, সরকারি সাহায্যপ্রাপ্ত ও বেসরকারি স্কুলগুলির প্রধান শিক্ষক-শিক্ষিকা বা টিচার ইনচার্জকে ওই দিন অ্যাডমিট কার্ড নির্দিষ্ট ক্যাম্প অফিস থেকে নিতে বলা হয়েছে। পরে তা পড়ুয়াদের মধ্য়ে বিলি করবে সংশ্লিষ্ট স্কুল।

অন্যদিকে মাধ্যমিকের অ্যাডমিট কার্ড বিলিকে কেন্দ্র করে তৈরি হয়েছে বিতর্ক। অ্যাডমিট কার্ড নেওয়ার ক্ষেত্রে প্রধান শিক্ষক-শিক্ষিকা বা টিচার ইনচার্জদের নন জুডিশিয়াল স্ট্যাম্প পেপারে একটি মুচলেকা দিতে বলা হয়েছে। মুচলেকা না দিতে অ্যাডমিট কার্ড দেওয়া হবে না বলে জানিয়েছে পর্ষদ। যা মানতে নারাজ প্রধান শিক্ষক-শিক্ষিকা ও টিচার ইনচার্জদের একাংশ।

আরও খবর – সুখবর! আধার কার্ড থাকলেই ১০ লক্ষ টাকা পাবে বেকার ছেলে মেয়ে সকলেই

Advertisement
JoinJoin