Gruha Jyothi Yojana – এবার থেকে ২০০ ইউনিট বিদ্যুৎ ফ্রি, কারা এই সুবিধা পাবে! বিস্তারিত জানুন।

Advertisement

Gruha Jyothi Yojana – গরমকাল চলছে, এঘর থেকে ওঘর যেতে গেলেও ঘেমে নেয়ে একসা হয়ে যেতে হয়। তাই ঘরে ফ্যান বা এসি ছাড়া নিস্তার নেই। সারাদিন ফ্যান-এসি চলার কারনে মাস শেষে বিদ্যুতের বিল দেখে মাথায় হাত পড়ে। আকাশ ছোঁয়া ইলেকট্রিক বিল দেখে চক্ষু চড়ক গাছ হয় প্রায় সবারই। আকাশ ছোঁয়া ইলেকট্রিক বিলের থেকে মধ্যবিত্ত থেকে নিম্ন মধ্যবিত্ত কেউই ছাড় পাচ্ছেন না। মাস গেলে মোটা অঙ্কের বিল গুনতে হয়। কিন্তু বিল কমানোর উপায় কি?

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now
Advertisement

আর কথাতেই আছে সাবধানের মার নেই। অতঃপর এই অতিরিক্ত বিলের রাশ টানতে নিজেদের সতর্ক হতে হয়।তাই অনেকেই বাধ্য হয়ে ঘরের আলো, পাখা চালানো কমিয়ে দেন। যাতে কিছুটা হলেও ইলেকট্রিক বিল কম আসে।তবে এখন থেকে বিদ্যুৎ বিলের জন্য আর চিন্তিত হতে হবে না। কারন এখন এমনিতেই বিদ্যুৎ বিল সাশ্রয় করতে পারবেন। হা ঠিকি শুনছেন, ১ জুলাই থেকে ২০০ ইউনিট বিদ্যুৎ ফ্রি (Gruha Jyothi Yojana) পাবেন।

Advertisement

আরও পড়ুন – Bank Rules update – ব্যাঙ্কে নিয়ম বদলাতে চলেছে! বিপদে পড়ার আগে জেনে নিন।

আগামী ১ জুলাই থেকে দক্ষিনের রাজ্যের বাসিন্দাদের জন্য ২০০ ইউনিট বিনামূল্যে বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হবে।সরকারের তরফে এমনটাই ঘোষণা করা হয়েছে। রাজ্যের বাসিন্দাদের জন্য এটি নিঃসন্দেহে একটি বড়ো সুখবর! এর ফলে বিদ্যুতের বিল বেশ খানিকটা কম দিতে হবে। তবে এই নিয়ম কেবলমাত্র কর্ণাটকের বাসিন্দাদের জন্যই প্রযোজ্য হবে। তবে সকল বাসিন্দারা এই সুবিধা পাবেন না।

কারা এই সুবিধা পাবেন?

কেবলমাত্র কর্ণাটকের ভাড়াটে বাসিন্দাদের জন্য এই নিয়ম প্রযোজ্য। আগামী ১ জুলাই থেকে দক্ষিনের কর্ণাটক রাজ্যের সমস্ত ভাড়াটেদের ২০০ ইউনিট বিনামূল্যে বিদ্যুৎ সরবরাহ করবে সেই রাজ্যের সরকার। অর্থাৎ যারা ভাড়ায় বসবাস করছেন তাদের জন্য বিনামূল্যে এই বিদ্যুৎ বিল (Gruha Jyothi Yojana) সুবিধা।

২০২৩ সালের বিধানসভা নির্বাচনের আগে কংগ্রেস, কর্ণাটক বাসীকে যে পাঁচটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। যে পাঁচটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন তার মধ্যেই ছিল বিনামূল্যে ২০০ ইউনিট বিদ্যুৎ পরিষেবা প্রদান। মুখ্যমন্ত্রী স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন যে এই সুবিধা কোনো রকম বাণিজ্যিক উদ্দেশে ব্যবহৃত বিদ্যুতের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে না। রাজ্যের সমস্ত ভাড়াটে বাসিন্দাদের বিনামূল্যে বিদ্যুৎ দেওয়ার সুবিধাকে গৃহ জ্যোতি স্কিমের (Gruha Jyothi Yojana) অধীনে রাখা হয়েছে।

গৃহ জ্যোতি প্রকল্প (Gruha Jyothi Yojana) কি?

২০২৩ সালের বিধানসভা নির্বাচনের আগে কংগ্রেস, কর্ণাটক বাসীকে যে পাঁচটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল তার মধ্যে একটি হল এই ‘গৃহ জ্যোতি’ প্রকল্প (Gruha Jyothi Yojana). আগামী মাসের ১ তারিখ থেকেই এই প্রকল্পের সূচনা হতে চলেছে। গৃহ জ্যোতি স্কিমের অধীনে রাজ্যের সমস্ত ভাড়াটে বাসিন্দাদের বিনামূল্যে বিদ্যুৎ (Gruha Jyothi Yojana) দেওয়া হবে। পয়লা জুলাই থেকেই কর্ণাটকের ভাড়াটেদের ‘গৃহ জ্যোতি’ প্রকল্পের সুবিধা দেওয়া হবে সেকথা কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া নিজেই জানিয়েছেন।

তবে কর্ণাটকের কংগ্রেস সরকারের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে বিজেপি প্রতিবাদ জানিয়েছে। এই প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া ভারতীয় জনতা পার্টির উদ্দেশ্যে বলেন ভোটের আগে বিজেপি দাবি করেছিল ১০ ঘন্টা বিনামূল্যে বিদ্যুৎ, কৃষি ঋণ মকুব এবং সেচের জন্য ১.৫ লক্ষ কোটি টাকা খরচ করা হবে। কিন্তু বিজেপির তরফে একটি প্রতিশ্রুতিও রক্ষা করা হয়নি। বরং উল্টে শুধুমাত্র কর্ণাটকে লুট করেছে। তবে কর্ণাটক বাসীকে আমরা যে পাঁচটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলাম তা রাখব।

আরও পড়ুন – Free Aadhar card update – হাতে আর মাত্র ২ দিন! এই কাজ না করলে আধার কার্ড বাতিল হয়ে যাবে।

Advertisement
JoinJoin