Gram suraksha yojana- রোজ ৫০ টাকা দিলেই মিলবে ৩৫ লক্ষ টাকা! পোস্ট অফিসের এই স্কিমে দিচ্ছে মোটা অংকের হাতছানি।

Advertisement

Gram suraksha yojana- অনেকেই মনে করেন পোস্ট অফিসে অর্থ বিনিয়োগ ঝুঁকিমুক্ত। শুধু তাই নয়, মানুষ নিরাপদ এবং ভাল রিটার্নযুক্ত স্কিম পান এখানে। সেরকমই একটি দুর্দান্ত পোস্ট অফিস স্কিম বা Post Invest Scheme হল গ্রাম সুরক্ষা যোজনা বা Gram suraksha yojana। এই স্কিমে প্রতিদিন মাত্র ৫০ টাকা জমালেন ৩৫ লক্ষ টাকা রিটার্ন পাওয়া যাবে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

কারা বিনিয়োগ করতে পারবেন?

Advertisement

গ্রামীণ ডাক জীবন বীমা প্রকল্পের একটি অংশ গ্রাম সুরক্ষা যোজনা বা Gram suraksha yojana। এই বীমা আজকের নতুন নয়। ১৯৯৫ সাল থেকে এই পলিসি দেশের গ্রামীণ জনগণের জন্য চালু রয়েছে। ১৯ বছর বয়স থেকে ৫৫ বছর বয়সীরা এই প্রকল্পে বিনিয়োগ করতে পারেন। এই স্কিমে বিনিয়োগ করা যায় ১০,০০০ টাকা থেকে ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত। প্রিমিয়াম পরিশোধের জন্য দারুন সুযোগ রয়েছে। এক্ষেত্রে মাসিক, ত্রৈমাসিক, অর্ধবার্ষিক এবং বার্ষিক ভিত্তিতে প্রিমিয়াম দেওয়া যায়।

Advertisement

আরও পড়ুন – PNG Gas- জলের মতো পাইপলাইনে বাড়ি বাড়ি পৌছে যাবে গ্যাস! ঝুঁকি কম, সাশ্রয় বেশি। কী এই  পিএনজি গ্যাস? জেনে নিন বিস্তারিত 

Gram suraksha yojana-তে ৩৫ লক্ষ টাকা কীভাবে রিটার্ন পাবেন?

যদি ৫৮ বছর বয়স পর্যন্ত এই স্কিমটির সুবিধা নিলে, প্রতি মাসে ১,৪৬৩ টাকা দিতে হবে। আর ৬০ বছর পর্যন্ত সুবিধা নিলে প্রতি মাসে ১,৪১১ টাকা জমা দিতে হবে। এই স্কিমে বিনিয়োগকারী ৫৫ বছরের বিনিয়োগে ৩১ লক্ষ ৬০ হাজার টাকা, ৫৮ বছরের বিনিয়োগে ৩৩ লক্ষ ৪০ হাজার টাকা এবং ৬০ বছরের বিনিয়োগে ৩৪ লক্ষ ৬০ হাজার টাকা ম্যাচুরিটির সময় পাবেন।

৮০ বছর বয়স পূর্ণ হলে ম্যাচুরিটি অর্থ ঐ ব্যক্তিকে দিয়ে দেওয়া হয়। যদি ব্যক্তি মারা যায়, সেক্ষেত্রে ওই অর্থ ব্যক্তির বৈধ উত্তরাধিকারী পেয়ে যায়। বলে রাখা প্রয়োজন, Gram suraksha yojana স্কিমে গ্রাহক ৩ বছর পরে সারেন্ডার করতে পারেন। তবে হ্যাঁ সেক্ষেত্রে কোনও লাভ পাবেন না। এই পলিসির সবচেয়ে বড় আকর্ষণ হল বোনাস।

আরও পড়ুন – Samabyathi Prakalpa- রাজ্য সরকারের এই প্রকল্পে আবেদন করলেই মিলবে ২ হাজার টাকা অনুদান! আবেদন ও কী কী ডকুমেন্ট লাগবে জেনে নিন 

Advertisement