PNG Gas- জলের মতো পাইপলাইনে বাড়ি বাড়ি পৌছে যাবে গ্যাস! ঝুঁকি কম, সাশ্রয় বেশি। কী এই  পিএনজি গ্যাস? জেনে নিন বিস্তারিত 

By Mira
Advertisement

PNG Gas- এতদিন ভারি সিলিন্ডারের মধ্যে ভর্তি এলপিজি (LPG) গ্যাস পৌছে যেত বাড়ি বাড়ি। এই গ্যাস সিলিন্ডারেই যাবতীয় রান্নার কাজ সারতে হত নাগরিকদের। তবে এবার বদলাতে চলেছে নিয়ম। জলের মতো এবার পাইপলাইনের মাধ্যমে বাড়ি বাড়ি পৌছে যাবে রান্নার গ্যাস। আগামী কয়েক মাসেই কলকাতায় এই পরিষেবা বৃদ্ধি পাবে বলে জানা যাচ্ছে। ইতোমধ্যে রাজ্যে এই পরিষেবার সূচনা হয়েছে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now
Advertisement

রাজ্যের মধ্যে দূর্গাপুরে এই নয়া পরিষেবার সূচনা হয়েছে সম্প্রতি। গোটা রাজ্যেই গ্যাস প্রেরণের জন্য পাইপলাইন পাতা হচ্ছে বলে খবর। শীঘ্রই এই পরিষেবা ছড়িয়ে যাবে রাজ্য জুড়ে। পিএনজি গ্যাস বা PNG Gas পরিষেবার সম্পর্কে ইতোমধ্যেই আলোচনা শুরু হয়েছে বিভিন্ন মহলে। শহর কলকাতাতেও এই পরিষেবার সূচনা হতে বেশি দেরি নেই। ঝুঁকি কম ও সাশ্রয় বেশি। এমন রান্নার গ্যাস পরিষেবার প্রতি আগ্রহ দেখাচ্ছেন  পশ্চিমবঙ্গের আমজনতা।

Advertisement

রাজ্য জুড়ে শুরু হচ্ছে পাইপলাইনে গ্যাস বা PNG Gas পরিষেবা

পাইপলাইনের মাধ্যমে গ্যাস পরিবহণ পরিষেবা সম্বন্ধে আলোচনা চলে অনেকদিন ধরেই। ২০১৮ সালে এই কাজের জন্য কেন্দ্রীয় পেট্রোলিয়াম ও প্রাকৃতিক গ্যাস নিয়ন্ত্রক পর্ষদের থেকে ছাড়পত্র চাওয়া হয়। সেই ছাড়পত্র অনুসারে উত্তরপ্রদেশের জগদীশপুর থেকে হলদিয়া পর্যন্ত রান্নার গ্যাস পরিবহনের পাইপলাইন শুরু হয়। এই কাজের বরাত দেওয়া হয় রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা ইন্ডিয়ান অয়েল। এবং আরও একটি সংস্থাকে।

আরও পড়ুন – Samabyathi Prakalpa- রাজ্য সরকারের এই প্রকল্পে আবেদন করলেই মিলবে ২ হাজার টাকা অনুদান! আবেদন ও কী কী ডকুমেন্ট লাগবে জেনে নিন 

ইতোমধ্যে গেইল (ইন্ডিয়া) লিমিটেড ও গ্রেটার ক্যালকাটা গ্যাস সাপ্লাই কর্পোরেশন লিমিটেডের পক্ষ থেকে একটি যৌথ উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। রাজ্যের বেশ কয়েকটি জেলা জুড়ে বসছে গেইল-এর গ্যাস পরিবহনের পাইপলাইন। যার মধ্যে অন্যতম হল দুর্গাপুর। কিছু দিন আগে কাঁকসার গোপালপুর পঞ্চায়েতে প্রথম পাইপলাইনের মাধ্যমে বাড়ি বাড়ি গ্যাস পরিষেবা প্রদানের ব্যবস্থা করা হয়। সিটি সেন্টারের সেল কো- অপারেটিভের ৫৯ তারাশঙ্কর সরণীতে প্রথম পাইপলাইন গ্যাসের শুভ সূচনা হয়েছে। আপাতত গোটা রাজ্যে এ নিয়ে পুরোদমে কাজ চলছে। কলকাতার ল্যান্ডিং পয়েন্টের কাছে পাইপলাইনের কাজ শেষ হলে রাজ্যে গ্যাস স্টেশনের সম্প্রসারণ সম্ভব হবে। 

PNG Gas পরিষেবাতে অতিরিক্ত কি সুবিধা পাবেন আমজনতা? 

বিশেষজ্ঞদের মতে, পাইপলাইনে গ্যাস বা PNG Gas পরিষেবায় ঝুঁকি অপেক্ষাকৃত কম। দুর্ঘটনা হওয়ার সম্ভাবনাও যথেষ্ট কম। তাছাড়া গ্যাস শেষ হয়ে গেলে বুকিংয়ের অপেক্ষায় বসে থাকার দরকার নেই। কারণ এই পরিষেবায় একটি মিটার বসানো হবে। সারা মাসে যতটা গ্যাস ব্যবহার হবে, সেই অনুযায়ী টাকা দিতে হবে ব্যবহারকারীকে। তবে প্রতি দুই মাস অন্তর বিল আসবে। বাড়িতে মিটার থাকায় কতটা গ্যাস খরচ হলো তা বুঝে নিতে পারবেন ব্যবহারকারী।

আরও পড়ুন – Karmashree Prakalpa- রাজ্য সরকারের নতুন প্রকল্পে ১০ হাজার টাকা পাবেন রাজ্যবাসী! জেনে নিন বিস্তারিত

Advertisement